মোদির কোথায় চীনা সেনা ভারতীয় ভূখণ্ডে ঢোকেনি, তবে কেন সেনাদের বলিদান? বিস্ফোরক মহুয়া

         Image source Twitter

ভারত-চীন সীমান্তে শহীদ হয়েছেন মোট ২০ জন ভারতীয় জওয়ান,এক পরিস্থিতিতে ক্ষোভের আগুন জ্বলছে গোটা দেশজুড়ে, সকল ভারতবাসী চাইছে চীনকে এর উপযুক্ত জবাব দিতে। আর এর মধ্যেই প্রধানমন্ত্রীর নরেন্দ্র মোদি সর্বদলীয় বৈঠকে বললেন,কেউ আমাদের সীমায় ঢোকেনি। কেউ আমাদের সীমায় নেই। আমাদের ভূমি কেউ কখনই দখল করতে পারেনি।২০ জন জওয়ান মারা গিয়েছেন ঠিকই, তবে ভারতের দিকে যাঁরা নজর দিয়েছিল তাদেরকে তাঁরা উচিত শিক্ষা দিয়েছে।আমাদের বাহিনী দেশকে রক্ষায় যা কিছু করার প্রয়োজন তা করবে। আমাদের মধ্যে এমন সামরিক ক্ষমতা রয়েছে যে কেউ আমাদের অঞ্চল এক ইঞ্চিও দখল রাখতে পারবে না।

তৃণমূল সাংসদ মহুয়া মৈত্র প্রধানমন্ত্রী মোদী কে আক্রমণ করে বলেছেন,সর্বদল বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী বলেছেন মোদির কোথায় চীনা সেনা ভারতীয় ভূখণ্ডে ঢোকেনি। ভারতীয় ভূখণ্ড বেদখলও হয়নি। আমি বুঝতে পারছি না, যদি কিছু না ঘটে থাকে, তাহলে উত্তেজনা প্রশমনের চেষ্টা কেন? কেন সেনা এবং কূটনৈতিক পর্যায় আলোচনা? কেন এই মৃত্যু?

কংগ্রেস সভানেত্রী সোনিয়া গান্ধী বলেছেন,৫ মে লাদাখে চিন যখন প্রথম অনুপ্রবেশ করে, তখনই এই বৈঠক ডাকা উচিৎ ছিল। কিন্তু তখন তা ডাকা হয়নি।কবে থেকে চিনা অনুপ্রবেশ করল, তা নিয়ে কি সরকারের কাছে তথ্য ছিল? গত সোমবারের এই ঘটনা কি ইন্টেলিজেন্স ব্যর্থতা? সরকারকে কি আগাম সতর্ক করা হয়নি? কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা এক্ষেত্রে কি আগাম সতর্ক করতে ব্যর্থ?বিরোধী দলগুলির বেশিরভাগই চীনের সাথে সীমান্ত ইস্যু পরিচালনার ক্ষেত্রে সরকারের সঙ্গে ঐক্যবদ্ধ থাকার বার্তা দিয়েছেন। তেলেঙ্গানার মুখ্যমন্ত্রী এবং তেলেঙ্গানা রাষ্ট্র সমিতি প্রধান কে চন্দ্রশেখর রাও, বিজু জনতা দল এবং সিকিম ক্রান্তি মোর্চা কংগ্রেসকে মতভেদ তৈরি করার চেষ্টা করার অভিযোগ এনেছিল।

Facebook Comments

Recommended For You

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *